বিনোদন

অভিনয় করেও মেলেনি টাকা! দাদাগিরির মঞ্চে এসে এই পরিচালকের বিরুদ্ধে বিস্ফোরক সাবিত্রী চট্টোপাধ্যায়

দাদাগিরির মঞ্চে এবার এসেছিল টিম ‘প্রধান’। সেখানে স্বাভাবিক ভাবেই উপস্থিত ছিলেন বর্ষীয়ান অভিনেত্রী সাবিত্রী চট্টোপাধ্যায়। এখনও আগের মতই রঙিন এভারগ্রীন তিনি। এবার দাদার সামনে এসে বলে বসলেন এক বিস্ফোরক কথা। এক সময়ে কাজ করেও টাকা দেওয়া হয়নি তাঁকে। এমনই এক অভিযোগ করে বসলেন এক পরিচালকের বিরুদ্ধে।

ইন্ডাস্ট্রির বর্ষীয়ান অভিনেত্রী হলেও কৌতুকরসে ভরপুর সাবিত্রী চট্টোপাধ্যায়। বয়স বাড়লেও মনের বয়স মোটেই বাড়েনি। দাদাগিরির মঞ্চে মিললল সাবিত্রী চট্টোপাধ্যায়ের সেই প্রাণচঞ্চল ইমেজের নজির। এবারে প্রকাশ্যে এল তারই প্রোমো।

কথায় কথায় পুরনো দিনে ফিরে যান অভিনেত্রী। বলেন, একটি ছবিতে কাজ করিয়ে তাঁকে টাকা দেননি বিকাশ রায়, টাকা না পেলেও, পরিচিতি পেয়েছিলাম। ওটুকুই।

এরপর আবার রসিকতা করতে দেখা যায় তাঁকে। বিয়ের প্রসঙ্গে বলেন, “আমার যখনই একটুখানি কাউকে ভাল লেগেছে, তিন দিনের মাথায় শুনেছি তাঁর বউ আছে”। এই শুনেই হেসে খুন উপস্থিত সকলে।

এদিকে এই কথা শুনে হাসতে থাকেন পরান বন্দ্যোপাধ্যায়ও। তখনই সৌরভ গাঙ্গুলি বলেন, “পরাণদার হাসি দেখেছেন”। এই শুনেই সাবিত্রী দেবী সঙ্গে সঙ্গে বলে ওঠেন, “আমার জন্যও তো সম্বন্ধ এসেছিল। কিন্তু শেষ পর্যন্ত বিয়েটা আর করা হয়নি”।ততক্ষণে অবশ্য সাবিত্রীর এই খুনসুটি-ভরা গল্প শুনে দেব থেকে মমতাশঙ্কর, হেসে খুন প্রত্যেকে।

Back to top button